মিয়ানমারে নির্বাচনের ফলাফলের জন্য অপেক্ষা

মিয়ানমারে নির্বাচনের ফলাফলের জন্য অপেক্ষা

অনলাইন ডেস্ক |
     
মিয়ানমারের ঐতিহাসিক সাধারণ নির্বাচনের ফলাফলের অপেক্ষায় দেশটির জনগণ। বিশ্ববাসীর নজরও সেদিকে। আজ সোমবার ওই নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশ করা হতে পারে। বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।
দেশটিতে দীর্ঘ প্রতীক্ষিত সাধারণ নির্বাচনে গতকাল রোববার শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়। বিকেল চারটায় ভোট গ্রহণ শেষ হওয়ার পর শুরু হয় গণনা।
দেশটির নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, ভোটারদের উপস্থিতি ছিল প্রায় ৮০ শতাংশ।
নির্বাচনে ভোটার ছিল প্রায় তিন কোটি। অন্তত ৯০টি দলের কমপক্ষে ছয় হাজার প্রার্থী ওই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।
মিয়ানমারে গত ২৫ বছরের মধ্যে গতকালের নির্বাচনকে সবচেয়ে অবাধ বলে গণ্য করা হচ্ছে। পরিবর্তনের স্বপ্ন নিয়ে দেশটির জনসাধারণ স্বতঃস্ফূর্ত ও উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দিয়েছেন।
একনায়কতন্ত্র থেকে গণতন্ত্রে উত্তরণের পথে এই নির্বাচন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের খবরে বলা হচ্ছে।
নির্বাচনে বিরোধী দল ন্যাশনাল লিগ ফর ডেমোক্রেসি (এনএলডি) বড় সাফল্যের আশা করছে। তবে দল বিজয়ী হলেও সাংবিধানিক বাধার কারণে প্রেসিডেন্ট হওয়ার সুযোগ পাবেন না এনএলডির নেত্রী নোবেল শান্তি পুরস্কারজয়ী অং সান সু চি।
দেশটির বর্তমান প্রেসিডেন্ট থেইন সেইনের ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ইউনিয়ন সলিডারিটি অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টি (ইউএসডিপি) নির্বাচনে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী।
নির্বাচন পার্লামেন্টের ৭৫ শতাংশ আসনের প্রতিনিধি চূড়ান্ত করবে। বাকি ২৫ শতাংশ আসন অনির্বাচিত সামরিক প্রতিনিধিদের জন্য সংরক্ষিত রয়েছে। তাঁরা জান্তা-সমর্থিত ইউএসডিপিকে সমর্থন দেবেন বলে ধারণা করা হয়। সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য এনএলডিকে ৬৭ শতাংশ আসনে জয়ী হতে হবে। এদিকে প্রেসিডেন্ট থেইন সেইন বলেছেন, ফলাফল যা-ই হোক না কেন, সরকার ও সেনাবাহিনী তা মেনে নেবে।

No comments: